পাকিস্তান ক্রিকেটে নতুন আফ্রিদি

0
215

পাকিস্তান ক্রিকেটে আরও একজন আফ্রিদির আগমনী বার্তা পাওয়া যাচ্ছে। তবে এবার লেগ স্পিনার নয়, মিডিয়াম পেসার আফ্রিদির দেখা পাওয়া যেতে পারে। পাকিস্তানের শীর্ষ ঘরোয়া টুর্নামেন্ট কায়েদে আজম ট্রফির অভিষেকেই ৩৯ রানে ৮ উইকেট নিয়েছে ১৭ বছর বয়সী বাঁহাতি মিডিয়াম পেসার শাহীন শাহ আফ্রিদি।

শাহীন শাহর জন্ম পাকিস্তানের উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলে আদিবাসী-অধ্যুষিত কেন্দ্রশাসিত এলাকায় (এফএটিএ) খাইবার অঞ্চলের আফ্রিদি গোত্রে। চার বছর বয়সে বড় ভাই রিয়াজ আফ্রিদিকে টেস্ট খেলতে দেখেছে। ভাইয়ের টেস্ট ক্যারিয়ারের শুরু ও শেষ ওই এক টেস্টেই। তবে রিয়াজের অনুপ্রেরণাতেই টেপ বল ছেড়ে শক্ত বলে বোলিং শুরু করে শাহীন। আঞ্চলিক অনূর্ধ্ব-১৬ প্রতিভা অন্বেষণের মাধ্যমে প্রথম সুযোগ পেয়েছিল। ২০১৫ সালে ১৬.১৭ গড়ে ১২ উইকেট নিয়ে ওই অঞ্চলের সর্বোচ্চ উইকেটশিকারি হয়।

অনূর্ধ্ব-১৯ পর্যায়েও আলো ছড়িয়েছে এই নতুন আফ্রিদি। পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড আয়োজিত আন্তবিভাগ ক্রিকেটে খাইবার অঞ্চল হয়ে ১৮.০৭ গড়ে ২৯ উইকেট নিয়েছে সে, হয়েছে সর্বোচ্চ উইকেটশিকারি। অনূর্ধ্ব-১৬ পর্যায়ে তাকে আবিষ্কার করেছিলেন কিংবদন্তি পাকিস্তানি লেগ স্পিনার মুশতাক আহমেদ। তিনি মনে করেন, বোলার হিসেবে তার উচ্চতা ও ফিটনেসই তাকে অনন্য করে তুলেছে, ‘ক্রিকেট টেম্পারমেন্টে সে অনেক পরিণত। এই বয়সেই তার ফিল্ডিং সাজানো মুগ্ধ করার মতো।’ নতুন আফ্রিদি ব্যাট হাতেও লোয়ার মিডল অর্ডারে কার্যকর হতে পারে। স্লগ করায় এর মধ্যেই দলগুলোর প্রশংসা কুড়িয়েছে।
এর মধ্যেই বিপিএলে খেলার চুক্তি করেছে শাহীন। এজেন্ট তালহা আইশাম তার ভিডিও ফুটেজ ই-মেইল করেন ঢাকা ডায়নামাইটসকে। অধিনায়ক কুমার সাঙ্গাকারা ও মুশতাক আহমেদের মধ্যে মেইল বিনিময়ে ২০১৭ থেকে দুই মৌসুমের জন্য তার সঙ্গে চুক্তিবদ্ধ হয় বিপিএলের বর্তমান চ্যাম্পিয়নরা।
প্রথম শ্রেণি পর্যায়ের প্রথম ম্যাচেই পাকিস্তানি বোলারদের মধ্যে সেরা পারফরম্যান্স দেখিয়েছে নতুন এই আফ্রিদি। ম্যাচে ৯ উইকেট পাওয়া এই পেসার আন্তর্জাতিক অঙ্গনে কতটা সফল হয় সেটাই দেখার বিষয়। আফ্রিদিদের তো মুদ্রার এপিঠ-ওপিঠ দুটোই দেখা আছে। রিয়াজ আফ্রিদির ক্যারিয়ার যেমন এক টেস্টে শেষ হয়েছে। উল্টোদিকে শহীদ আফ্রিদি আন্তর্জাতিক ক্রিকেট নিজের মতো করেই ইতিহাস গড়েছেন। কোন আফ্রিদি হতে চায় সেটা বেছে নিতে হবে শাহীনকেই।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here